Breaking News

রাতে শোবার সময় এই তিনটে জিনিস তার চাইই! বেডরুম এর সিক্রেট শেয়ার করলেন করিনা।

বলিউডে এমন অনেক জুটি আছে যা দর্শক দ্বারা আসল জীবনেও পছন্দ করা হয়। তাদের মধ্যেই একটি জুটি হলো সইফ আলী খান ও কারিনা কাপুরের। সইফ আলী খান ও কারিনা কাপুর প্রথমবার “টশন” ফিল্মে একসাথে কাজ করেন। এই ফিল্মে কাজ করার সময়ই তাদের মধ্যে বন্ধুত্ব সৃষ্টি হয় এবং সেখান থেকে ধীরে ধীরে একে অপরের প্রতি বিশেষ অনুভূতিরাও ডানা মেলে। এতে অবশ্য অক্ষয় কুমার ও তাদের সাহায্য করেছিল।

কারিনা কাপুর জানান রাতে ঘুমানোর সময় তার অবশ্যই তিনটে জিনিস ভীষণভাবে প্রয়োজন পড়ে। সেগুলি হলো ওয়াইনের একটি বোতল, পাজামা ও সইফ আলী খান। কারিনা কাপুরকে বলিউডের বিন্দাস হিরোইন মনে করা হয়। তার যা মনে হয় তিনি বলে দেন। বলার আগে সাধারণত তিনি ভেবে দেখেন না। কারিনা কাপুর জানান যখন প্রথমবার তিনি সইফ আলী খান কে দেখেন তখন তার নিজেকে “ম্যা হু না” সিনেমার সুস্মিতা সেনের মতো ফিল হচ্ছিল।

তার মনে হচ্ছিল ব্যাকগ্রাউন্ডে রোমান্টিক মিউজিক বাজছে আর তার শাড়ির আঁচল বাতাসে উড়ছে। আপনাদের জানিয়ে রাখি কোনো না কোনো কারণে সাইফ আলি খান ও কারিনা কাপুর চর্চায় থেকেই থাকেন। তাদের 8 বছর হলো বিয়ে হয়েছে কিন্তু তাদের কেমিস্ট্রি আজও সেই প্রথম দেখার মতোই রয়ে গেছে। সইফ আলী খান ও কারিনা কাপুরের দুটি পুত্র সন্তানও আছে- তৈমুর আলি খান ও জেহ আলী খান। গত ফেব্রুয়ারীতে কারিনা কাপুর তার দ্বিতীয় সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। কারিনা কাপুরের আগে সইফ আলী খান অমৃতা সিংকে বিয়ে করেছিলেন।

অমৃতা সিং সইফ আলী খানের থেকে 12 বছরের বড়। তাদের একত্রে একটি কন্যাসন্তান ও একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। অমৃতা সিংয়ের সাথে বিবাহ বিচ্ছেদ হওয়ার কয়েক বছর পর কারিনা কাপুরের সাথে সইফ আলী খানের সম্পর্ক হয়। কারিনা কাপুর সাইফ আলী খানের থেকে 10 বছরের ছোট তাদের দুজনের প্রফেশনাল লাইফ সম্পর্কে বলতে গেলে কারিনা কাপুরের ফিল্ম “লাল সিং চাড্ডা” রিলিজ হতে চলেছে আর সাইফ আলী খানের হাতে এই মুহূর্তে “ভূত পুলিশ” ও “বান্টি বাবলি 2” সিনেমার কাজ রয়েছে। “তান্ডব” নামের একটি ওয়েব সিরিজ কিছুদিন আগেই রিলিজ হয়েছিল তার।।

About Web Desk

Check Also

“যারা হিজড়া বলে মজা করত তারাই এখন তাকে স্যালুট করে”, কঠোর পরিশ্রমে শিবন্যা আজ সাব-ইন্সপেক্টর

যদিও দেশের সর্বোচ্চ আদালত সমকামিতাকে মর্যাদা দিয়েছে কিন্তু এলজিবিটি কিউ আজ পর্যন্ত সমাজে সমতার মর্যাদা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *